যে আট কারণে মানুষ প’রকীয়া করে, জানালেন বিজ্ঞানীরা

যে আট কারণে মানুষ প’রকীয়া করে, জানালেন বিজ্ঞানীরা

বর্তমানে অনেকেই দাম্পত্য সম্পর্কের বাইরে গিয়েও প্রেমের সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েন। যা কারো জন্যই সুখকর নয়। দাম্পত্য সম্পর্কে প্র’তারিত হতে কেই-বা চায়? কিছু মানুষ কেন প’রকীয়ায় জ’ড়িয়ে পড়েন, তার শীর্ষ ৮টি কারণ খুঁজে বের করেছেন বিজ্ঞানীরা।

যুক্তরাষ্ট্রের মেরিল্যান্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের বিজ্ঞানীরা ৫৬২ জন প্রাপ্তবয়স্কের ওপর জরিপ করেছেন। যারা প্র’তিশ্রুতিশীল রোমান্টিক সম্পর্কে থাকার পরও প’রকীয়ায় জড়িয়েছিলেন।

এই গবেষণার প্রধান গবেষক ডা. ডিলান সেল্টারম্যান বলেন, সম্পর্কে প্র’তারণার ঘটনা ব্যা’পকভাবে বেড়ে চললেও, কেন মানুষ প’রকীয়ায় জ’ড়ায় সে সম্পর্কে খুব বেশি গবেষণা নেই।

তিনি বলেন, অ’নৈতিক সম্পর্কে জড়াতে কোন বিষয় অ’নুপ্রেরণা দেয় সে সম্পর্কে বিজ্ঞানীরা নানাভাবে পরীক্ষা-নীরিক্ষা করেন। তারা দম্পত্তিদের গভীর বোধগম্যতা অর্জন, ক্ষতিগ্রস্ত সম্পর্ক মেরামত কিংবা বি’শ্বাসঘাতকতার সূত্রপাতকেই প’রকীয়ার কালন কলে জানান।

এগুলো প্রথম ধাপেই রো’ধ করতে পারলে প’রকীয়ার সম্ভাবণা নেই। দম্পতিদের থেরাপির সময় চিকিৎসকদেরও এটি সহায়ক হতে পারে।গবেষণায় অংশগ্রহণকারীদের প্রায় ৮০টি প্রশ্ন জিজ্ঞাসা করা হয়েছিল, যার উত্তর থেকে গবেষকরা প’রকীয়ার সাধারণ ৮টি কারণ শনাক্ত করেছেন।

গবেষণার ফলাফলে দেখা গেছে, পুরুষরা যৌ’ন বাসনা, বৈচিত্র্য এবং পরিস্থিতির চাপে অ’নৈতিক সম্পর্কে বেশি প্র’রোচিত হতে পারে। সেখানে নারীরা অবহেলার শি’কার থেকে অ’নৈতিক সম্পর্কে জড়াতে পারে।

গবেষকরা এমনকি এটাও জানিয়েছেন, বৈচিত্র্যতার অভিপ্রায় বি’শ্বাসঘাতকতার সঙ্গে যুক্ত। যা অনেকের সঙ্গেই ঘটতে পারে- আপাতদৃষ্টিতে সুখী সম্পর্কের ক্ষেত্রেও।

ডা. সেল্টারম্যান বলেন, আমরা প্রায়ই শুনি যে বিশ্বাসঘাতকতা একটি উপসর্গ, একটি ক্ষতিগ্রস্ত সম্পর্কের কারণ নয়। আমাদের গবেষণা বলছে, বিষয়টি এতটা সহজ নয়।

মানুষ নানা কারণে অ’নৈতিক সম্পর্কে জড়ায়। এর মধ্যে এমন অনেক কারণ রয়েছে যা সম্পর্কের অবস্থার সরাসরি প্র’তিফলন নয়। প’রকীয়ায় জড়ানোর শীর্ষ আটটি কারণ সম্পর্কে এবার জেনে নিন-

> বি’শ্বাসঘাতক সঙ্গীর ওপর প্র’তিশোধ নিতে অনেকেই অ’নৈতিক সম্পর্কে জড়য়ে পড়েন।

> দাম্পত্য সম্পর্কে দীর্ঘদিন যৌ’ন অ’সন্তুষ্ট অনুভব করাও প’রকীয়ার কারণ হতে পারে।

> সঙ্গীর প্রতি আবেগ অথবা আগ্রহ হারিয়ে ফেলা থেকে।

> কাঙ্ক্ষিত ভালোবাসা, সম্মান এবং মনযোগ না পাওয়া থেকে।

> একজন অপরজনের মতো প্র’তিশ্রুতিশীল না হওয়া কিংবা উভয়েই সম্পর্কের বিশেষত্ব বুঝতে না পারা থেকে।

> কোনো মানুষের স্বাভাবিক জীবনের বাইরের পরিস্থিতি অন্তর্ভুক্ত। যেমন- মা’তলামি, ছুটি উপভোগ কিংবা তীব্র মা’নসিক চাপ থেকে।

> একাধিক জনের সঙ্গে সম্পর্কে জড়ানোর মাধ্যমে আত্ম-তুষ্টি বৃদ্ধি করতে চাওয়া থেকে।

> অনেকের কাছ থেকে যৌ’ন অভিজ্ঞতা পাওয়ার ইচ্ছা থেকে।

তথ্যসূত্র: মিরর