এসপির জুতা থেকে বেরিয়ে এলো বিষধর সাপ!

এসপির জুতা থেকে বেরিয়ে এলো বিষধর সাপ!

জুতার মধ্যে লুকানো বিষধর সাপের কা’মড় থেকে বেঁচে গেলেন পুলিশের এক কর্মকর্তা। ভারতের মধ্যপ্রদেশের পান্নায় ঘটেছে এই ঘটনা।

টাইমস অব ইন্ডিয়া’র এক প্র’তিবেদন থেকে জানা গেছে, এসপি মায়াঙ্ক অবস্তীর জুতার মধ্যে ঢুকে লুকিয়ে ছিল বিষধর সাপ। জুতা থেকে মোজা বের করতে গিয়ে হাতে শীতল কিছু টের পেয়ে আঁতকে ওঠেন তিনি।

তবে কা’মড়ানোর আগেই নিজের হাত সরিয়ে নেন তিনি। তারপরও সতর্কতা হিসেবে পান্না জেলা হাসপাতালে প্রাথমিক পরীক্ষার পর জবলপুরে নেয়া হয় তাকে। সেখানে চিকিৎসকদের তত্ত্বাবধানে রয়েছেন অবস্তী। তবে তিনি পুরোপুরি সুস্থ রয়েছেন।

প্র’তিবেদন থেকে আরো জানা গেছে, নিজের বাংলো থেকে বেরিয়ে অফিসের দিকে যাওয়ার জন্য জুতা পায়ে দিতে গিয়েছিলেন তিনি। যখন জুতা থেকে মোজা বের করেন, তখনই টের পান জুতার ভেতরে কিছু একটা রয়েছে।

এরপর দ্রুত তিনি হাত সরিয়ে নেন। ভালো করে পরীক্ষার পর দেখতে পান বি’ষাক্ত সাপ ঢুকে রয়েছে জুতার মধ্যে। এরপর আর দেরি না করে সোজা জেলা হাসপাতালে পৌঁছান এসপি। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসককে বিষয়টি খুলে বলেন।

তবে হাসপাতালে তাকে চেকআপ করা হলেও শরীরে সাপের কা’মড়ের কোনো চিহ্ন পাওয়া যায়নি। তবে আঙুল সামান্য ফোলা থাকায় আশঙ্কা করা হচ্ছিল সাপের কা’মড়ের। সে কারণে তাকে জবলপুরের হাসপাতালে পাঠানো হয়। সেখানে তার চিকিৎসা করা হচ্ছে। সেখানে তিনি পুরোপুরি সুস্থ আছেন।