এবার মসজিদ ভেঙে টয়লেট বানালো চীন

এবার মসজিদ ভেঙে টয়লেট বানালো চীন

চীনের বিরুদ্ধে দীর্ঘদিন যাবৎ ই সংখ্যালঘু মুসলিম উইঘুর সম্প্রদায়ের প্রতি নির্যাতনের অভিযোগ রয়েছে। আর এবার জানা গেল উইঘুর সম্প্রদায়ের একটি মসজিদকে ভেঙে গণশৌচাগারে রূপান্তর করেছে চীন।

মসজিদটি উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় রাজ্য জিনজিয়ানে অবস্থিত।পর্যবেক্ষকরা মনে করছেন, এটি চীনা সরকারের উইঘুর জাতিগোষ্ঠী নিশ্চিহ্নের পরিকল্পনার আরেকটি প্রমাণ।

জানা গেছে, তোকুল’ মসজিদের জায়গায় শৌচাগার নির্মাণের কয়েকদিন আগে ওই শহরে থাকা তিনটি মসজিদের মধ্যে দুটি মসজিদই গুঁড়িয়ে দেয়া হয়। এর আগে ২০১৬ সালে মসজিদ সংস্কারের নামে

মুসলমানদের গণজমায়েতে নামাজ পড়ার স্থানগুলো গুড়িয়ে দেয়ার পরিকল্পনা করে বেইজিং। ‘নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক রেডিও ফ্রি এশিয়াকে দেয়া সাক্ষাতকারে উইঘুর সম্প্রদায়ের এক ব্যক্তি বলেন,

ওই গ্রামপ গণশৌচাগারের কোনো প্রয়োজন ছিলোনা কারন সকলের বাড়িতেই শৌচাগার রয়েছে। কিন্তু তারপরও উইঘুরবিরোধী হান গোষ্ঠীর নেতারা মসজিদ ভেঙে ওয়াশরুম,

গেস্টরুম এবং শৌচারগার তৈরি করেছে।প্রসঙ্গত, ২০১৯ সালে সুনতাঘেরেও একটি মসজিদ গুঁড়িয়ে পানশালা তৈরি করা হয়।