চীন সাগরে অবস্থানরত মার্কিন র’ণতরী ধ্বং’সের হু’মকি চীনের!

চীন সাগরে অবস্থানরত মার্কিন র’ণতরী ধ্বং’সের হু’মকি চীনের!

দক্ষিণ চীন সাগরের পুরোটাই ঘিরে রেখেছে চীনা সেনারা৷ সেখানে কোনও মার্কিন নৌবাহিনীর যু’দ্ধজাহাজের গতিবিধি চীনের ইচ্ছের ওপর নির্ভরশীল৷ চীনের সরকারি মুখপত্র গ্লো’বাল টাইমস

এক টুইট বার্তায় আমেরিকাকে হু’মকি দিয়ে এমনই দাবি করেছিল৷ আর চীনের এই চোখরাঙানিকে কার্যত আমলই দিল না মার্কিন নৌসেনা৷ পা’ল্টা টুইট বার্তায় তারা বলেছে, এখনও দক্ষিণ চীন সাগরে দু’টি মার্কিন র’ণতরী রয়েছে৷

তাদের ভয়ে ওই যু’দ্ধজাহাজগুলি প্রত্যাহারের কোনও সম্ভাবনাই নেই বলেও জানিয়ে দিয়েছে মার্কিন নৌসেনা দক্ষিণ চীন সাগরে প’রমাণু জ্বা’লানিতে চলা যু’দ্ধবিমান বহনে সক্ষম দু’টি র’ণতরী মোতায়েন করেছে আমেরিকা৷

সেখানেই সামরিক মহড়া চালাচ্ছে মার্কিন নৌবাহিনী৷ এর পরই গত রোববার গ্লোবাল টাইমস-এর মাধ্যমে মার্কিন নৌবাহিনীকে হু’মকি দেয় চীনা সেনা৷ দাবি করা হয়, DF-21D এবং DF-26-এর মতো

অ্যান্টি এয়ারক্র্যাফ্ট কেরিয়ার কি’লার মি’সাইলের নাগালের মধ্যেই রয়েছে মার্কিন যু’দ্ধজাহাজ দু’টি৷ চাইলেই চীন মার্কিন র’ণতরীগুলিকে ধ্বং’স করতে পারে বলেও প্রচ্ছন্ন হুঁ’শিয়ারি দেয়৷ যদিও তাদের এই দাবিতে বিশেষ আমল দেয়নি মার্কিন নৌবাহিনী৷

গ্লো’বাল টাইমস-এর টুইটের জবাবে তারা জানায়, তাদের দু’টি র’ণতরী USS Nimitz এবং USS RonaldReagan এখনও দক্ষিণ চিন সাগরেই রয়েছে৷ সেখান থেকে সরে আসারও কোনও পরিকল্পনা নেই৷

এদিকে আন্তর্জাতিক বাণিজ্যপথ হিসেবে দক্ষিণ চীন সাগর অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ, তাই সেখানে চীনের দখলদারিত্ব মানতে নারাজ যুক্তরাষ্ট্র৷ তাই দক্ষিণ চীন সাগরে নিজেদের র’ণতরী পাঠিয়ে চিনের উপরে চা’প বাড়াচ্ছে তারা৷