জরুরি সভা তাপসের; ঢাকা লক ডাউন !

ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন (ডিএসসিসি) এলাকায় লকডাউন বাস্তবায়ন কমিটির ২য় জরুরি সভা আহ্বান করা হয়েছে।বৃহস্পতিবার (২৫ জুন) সকাল ১০টায় ডিএসসিসি মেয়র ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপসের সভাপতিত্বে এ সভা অনুষ্ঠিত হবে।

বুধবার ডিএসসিসির জনসংযোগ কর্মকর্তা মো. আবু নাছের বিষয়টি গণমাধ্যমে নিশ্চিত করেছেন। মঙ্গলবার লকডাউন বিষয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে ডিএসসিসি মেয়র শেখ ফজলে নূর তাপস বলেছিলেন, ‘আমরা প্রস্তুত। লকডাউন বাস্তবায়নে এলাকাভিত্তিক সিদ্ধান্তের অপেক্ষায় আছি।’

এর আগে গত ১৬ জুন নগর ভবনে কোভিড-১৯ নিয়ন্ত্রণে জোনিং সিস্টেম বাস্তবায়ন বিষয়ক ডিএসসিসির কেন্দ্রীয় ব্যবস্থাপনা কমিটির ১ম সভা অনুষ্ঠিত হয়।

চলমান করোনাভাইরাসে আক্রান্তের হার বিবেচনায় রেড, ইয়েলো ও গ্রিন জোন চিহ্নিত করে করোনা প্রতিরোধে গঠিত জাতীয় টেকনিক্যাল কমিটি ঢাকার ৪৫টি অত্যন্ত ঝুঁকিপূর্ণ এলাকাকে লকডাউনের সুপারিশ করেছিল। এর মধ্যে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের ২৮টি এবং ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের ১৭টি এলাকা রয়েছে।

জানা গেছে, ঢাকা দক্ষিণ সিটিতে রেড জোনের সুপারিশ করা এলাকার মধ্যে আছে- যাত্রাবাড়ী, ডেমরা, মুগদা, গেন্ডারিয়া, ধানমন্ডি, জিগাতলা, লালবাগ, আজিমপুর, বাসাবো, শান্তিনগর, পল্টন, কলাবাগান, রমনা, সূত্রাপুর, মালিবাগ, কোতোয়ালি, টিকাটুলি, মিটফোর্ড, শাহজাহানপুর, মতিঝিল, ওয়ারী, খিলগাঁও, পরীবাগ, কদমতলী, সিদ্ধেশ্বরী, লক্ষ্মীবাজার, এলিফ্যান্ট রোড ও সেগুনবাগিচা।

অন্যদিকে ঢাকা উত্তর সিটির এলাকাগুলোর মধ্যে রয়েছে- গুলশান, বাড্ডা, ক্যান্টনমেন্ট, মহাখালী, তেজগাঁও, রামপুরা, আফতাবনগর, মগবাজার, এয়ারপোর্ট, বনশ্রী, রাজাবাজার, মোহাম্মদপুর, কল্যাণপুর, গুলশান, উত্তরা, মিরপুর। এগুলোকে রেড জোন হিসেবে ঘোষণার সুপারিশ করেছে টেকনিক্যাল কমিটি।