অমিত শাহ আসায় ‘অপবিত্র’ হয়ে গেছে শহীদ মিনার, সাবান-গঙ্গা জলে পরিষ্কার

অমিত শাহ এসেছিলেন কলকাতার শহিদ মিনার ময়দানে। তাই ‘অপবিত্র’ হয়ে গেছে ঐতিহাসিক এই স্মৃ’তি সৌধ। সেই জন্য গঙ্গা জল, সাবান দিয়ে মিনার শুদ্ধ করল এসএফআই এবং ছাত্র পরিষদ।

রবিবার শহিদ মিনার ময়দানে সভা করেন কেন্দ্রীয় স্ব’রা’ষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। তার কলকাতা সফরকে ঘিরে একাধিক বি’ক্ষো’ভ কর্মসূচি পালন করেছে বাম এবং কংগ্রেস। কালো পতাকা, কালো বেলুনে অমিত শাহর নামে লেখা পোস্টার নিয়ে শহর জুড়ে বাম কংগ্রেস ছাত্র-যুব থেকে শুরু করে অনেক গণসংগঠনই পথে নামে। কোথাও এককভাবে, আবার কোথাও যৌথভাবে কর্মসূচি পালন করে বাম এবং কংগ্রেস।

এনআরসি এবং সম্প্রতি দিল্লির হিংসা ছিল তাদের প্র’তিবাদের প্রধান ইস্যু। কিন্তু রবিবার দিনভর বি’ক্ষো’ভ কর্মসূচি পালন করার পরও অমিত শাহ ইস্যুকে হাত ছাড়া করতে চাইছে না বাম এবং কংগ্রেস।

সোমবার তাই শহিদ মিনারে গিয়ে সৌধ পরিষ্কার করার কর্মসূচি পালন করল তারা। যৌথভাবে কলকাতা জে’লা বাম ছাত্র সংগঠন এসএফআই এবং কংগ্রেসের ছাত্র সংগঠন ছাত্র পরিষদ এই কর্মসূচি পালন করল। এদিন তারা শহিদ মিনারে গিয়ে গঙ্গা জলে সাবান দিয়ে মিনারের বেদি পরিষ্কার করে। তারপর সেখানে ফুলের মালা দিয়ে এক মিনিট নীরবতা পালন করে এসএফআই এবং ছাত্র পরিষদের সদস্যরা।

এই কর্মসূচিতে নেতৃত্ব দেন কংগ্রেস নেতা শুভঙ্কর স’রকার। তিনি বলেন, ‘গুজরাত হিংসার পর দিল্লির হিংসাতেও অমিত শাহর হাত র’ক্তাক্ত। এর আগের বার তিনি কলকাতায় যখন এসেছিলেন, তখন যে বিদ্যাসাগর আমাদের বর্ণপরিচয়ের লেখক, তাঁর মূর্তি ভাঙ্গা হয়েছিল।

এবার তিনি কলকাতায় এলেন, আর স্লোগান উঠলো ‘গোলি মারো…’। আমরা মনে করি এরকম একজন মানুষের পা শহিদ মিনার ময়দানে পড়াতেই অপবিত্র হয়ে গেছে ঐতিহাসিক শহিদ মিনার। তাই আমরা আজ সাবান জল দিয়ে সব শুদ্ধ করলাম।’